,

সড়কের পাশে ইউপি সদস্যের ক্ষতবিক্ষত মরদেহ

জেলা প্রতিনিধি, ময়মনসিংহ: ময়মনসিংহ-টাঙ্গাইল মহাসড়কের মুক্তাগাছার গাবতলী বাজার এলাকায় সড়কের পাশ থেকে সুরুজ আলী সুর্যি (৪৫) নামে ইউপি সদস্য ও এক আওয়ামী লীগ নেতার মরদেহ উদ্ধার করেছে মুক্তাগাছা থানা পুলিশ।

শনিবার রাত পোনে ১টার দিকে তার ক্ষতবিক্ষত লাশ উদ্ধার করা হয়। তিনি মুক্তাগাছার ঘোগা ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের দুই দুইবার নির্বাচিত ইউপি সদস্য ও একই ওয়ার্ডের আওয়ামী লীগের সভাপতি ছিলেন। তার বাড়ি উপজেলার চাঁনপুর গ্রামে।

পুলিশ বলছে, সুরুজ আলী সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন। আর তার পরিবারের সদস্য বলছেন, তাকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে। এ সময় হেলাল উদ্দিন নামে তার এক সঙ্গীও গুরুতর আহত হয়েছেন। তাকে  ঢাকার বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

নিহতের পরিবারের সদস্যরা জানান, একই এলাকার হেলাল উদ্দিনের সঙ্গে মোটরসাইকেল যোগে শনিবার রাত ১২টার দিকে স্থানীয় কালিবাড়ী বাজার থেকে ইউপি সদস্য সুরুজ আলী সুর্যি বাড়িতে ফিরছিলেন। ওই রাতেই পোনে ১টার দিকে সড়কের পাশে তার লাশ পাওয়ার খবর তার পরিবারের সদস্যদের জানানো হয়। তার মাথা ও পা সহ বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তাদের ব্যবহৃত মোটরসাইকেলটি সামান্য ভাঙা রয়েছে।

নিহত সুরুজ আলীর স্ত্রী জমেলা আক্তার বলেন, ইউপি নির্বাচন নিয়ে তার স্বামীর দ্বন্দ্ব ছিল। সুরুজ আলীর প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী সুলতান উদ্দিনসহ এলাকার কয়েকজন তাকে হত্যার হুমকি দিতেন।

এদিকে এ অভিযোগ অস্বীকার করে সুলতান উদ্দিন বলেন, ঘটনার সময় তিনি বাড়িতে ছিলেন। আর কীভাবে সুরুজ আলী মারা গেল বা কে তাকে হত্যা করল এটা তার জানা নেই। অহেতুক তাকে এ ঘটনার সঙ্গে জড়ানো হচ্ছে।

মুক্তাগাছা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহমুদুল হাসান বলেন, প্রাথমিকভাকে ধারণা করা হচ্ছে- সুরুজ আলী সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন। এছাড়া ময়নাতদন্তের রিপোর্ট ছাড়া প্রকৃত ঘটনা বলা সম্ভব হবে না। আর তার সঙ্গীও অসুস্থ থাকায় কী ঘটেছিল তা জানা যায়নি।

এই বিভাগের আরও খবর


AllEscort