,

নিখোঁজের ৪৮ ঘন্টার মধ্যে ছেলেকে খুঁজে দিলো পুলিশ

টুঙ্গিপাড়া (গোপালগঞ্জ) প্রতিনিধি: পরিবারের সদস্যদের সাথে রাগারাগি করে নানা বাড়ি যাওয়ার কথা বলে বাড়ি থেকে বের হয়ে যায় ১২ বছর একটি ছেলে। পরবর্তীতে তাকে কয়েকদিন ধরে খোঁজাখুঁজির পর না পেলে ছেলেটির বাবা টুঙ্গিপাড়া থানায় সাধারণ ডাইরী করে। পরে ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে বাড়ি থেকে রাগ করে চলে যাওয়া ছেলেটিকে মাওয়া ঘাটের ফেরি থেকে উদ্ধার করে পুলিশ। নিখোঁজ ছেলেটি তার পরিচিত সাইফুল নামের একটি ছেলের কাছে মাওয়া ঘাটে গত কয়েকদিন ধরে ছিলো।
উদ্ধারকৃত ছেলেটির নাম দুখু মিয়া (১২)। সে টুঙ্গিপাড়া উপজেলার গিমাডাঙ্গা গ্রামের মশিউর রহমানের ছেলে।
দুখুর পিতা মশিউর রহমান জানান, তার ১২ বছর বয়সী ছেলে দুখু পরিবারের সদস্যদের উপর রাগ হয়ে উপজেলার গওহরডাঙ্গা গ্রামে নানা বাড়ি যাওয়ার উদ্দেশ্যে বের হয়। তার কিছু সময় পরে খোঁজ নিয়ে জানতে পারি দুখু তার নানা বাড়ি যায়নি। তখন প্রায় ১০-১২ দিন ধরে খোঁজাখুঁজির পরও দুখুর কোন হদিস পাওয়া যাচ্ছিল না। পরে নিরুপায় হয়ে গত ২৩ জানুয়ারি টুঙ্গিপাড়া থানায় সাধারণ ডাইরী করি। ডায়েরি করার ৪৮ ঘন্টার মধ্যে আমার ছেলেকে মাওয়া ঘাটের ফেরির উপর থেকে উদ্ধার করে পুলিশ। পরে থানার উপপরিদর্শক কামরুল ইসলাম সহ অন্যান্য পুলিশ সদস্যরা ছেলেকে আমাদের হাতে তুলে দেন।
তিনি আরও বলেন, ছেলেটিকে খুঁজে দেওয়ায় আমরা পুলিশের কাছে কৃতজ্ঞ। এমন কাজ যদি পুলিশ অব্যাহত রাখে তাহলে পুলিশের প্রতি মানুষের আস্থা আরও বাড়বে।
টুঙ্গিপাড়া থানার উপপরিদর্শক কামরুল ইসলাম বলেন, ছেলেটির পিতা সাধারণ ডাইরী করার পরে বিভিন্ন জায়গায় খোঁজ নেয়া শুরু করে পুলিশ। তখন দুখুর পরিচিত খুলনায় রুমন নামের একটি ছেলেকে জিজ্ঞাসাবাদের মাধ্যমে জানতে পারি তার অবস্থান। পরে মঙ্গলবার রাতে মাওয়া ঘাটের ফেরির উপর থেকে দুখুকে উদ্ধার করি।  এরপর বুধবার সকালে ছেলেটির পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

এই বিভাগের আরও খবর


AllEscort